৬০ শতাংশ ভাড়া বাড়ানোর দাবি চট্টগ্রাম বাস মালিকদের

করোনার নতুন ধরন ওমিক্রনের প্রভাবে ভারতে লাফিয়ে লাফিয়ে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ৯৪ হাজার ৭২০ জন। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৩ কোটি ৬০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। খবর এনডিটিভির।

একদিন আগের তুলনায় সংক্রমণের হার ১৫ দশমিক ৮ শতাংশ বেড়েছে। একদিন আগে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ৬৮ হাজার। সরকারি হিসেব অনুযায়ী, ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের হার ১১ দশমিক ৫ শতাংশ।

আক্রান্তের পাশাপাশি গত ২৪ ঘণ্টায় দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যাও বেড়েছে। নতুন করে একদিনেই ৪৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে। প্রায় সব রাজ্যেই আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে শুরু করেছে। তবে মৃতের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি কেরালায়।

ভারতে এখন পর্যন্ত ৪ হাজার ৮৬৮ জনের দেহে ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে। দেশটি ওমিক্রণে আক্রান্তের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি মহারাষ্ট্রে। সেখানে এখন পর্যন্ত ওমিক্রনে আক্রান্ত হয়েছে ১ হাজার ২৮১ জন এবং রাজস্থানে ৬৪৫ জন।

ভারতে এখন পর্যন্ত ১৫৩ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ মোট জনসংখ্যার প্রায় ৪৬ শতাংশ ভ্যাকসিনের অন্তত একটি ডোজ পেয়েছে।

এক সপ্তাহ ধরে ২৯টি রাজ্যের কমপক্ষে ১২০টি জেলায় সংক্রমণের ঊর্ধ্বগতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে। মহামারির তৃতীয় ঢেউয়ে এসব জেলায় সংক্রমণের হার প্রায় ১০ শতাংশ।

সম্প্রতি বুস্টার ডোজ দেওয়া শুরু করেছে ভারত। সম্মুখ সারির মেডিকেল কর্মী ৬০ বছরের বেশি বয়সীদের প্রথম ধাপে বুস্টার ডোজ দেওয়া হচ্ছে।

সংক্রমণ বাড়তে থাকায় অনেক রাজ্যেই রাত্রিকালীন কারফিউ জারি করা হয়েছে। এদিকে গত সপ্তাহে দিল্লিতে লকডাউন জারি করা হয়। ওমিক্রনের বিস্তার ঠেকাতে ইতোমধ্যেই বিভিন্ন বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, রেস্টুরন্টে, বার বন্ধ রাখা হয়েছে।