আসছে শীত, প্রস্তুতি নিন এখনই

লাইফস্টাইল ডেস্ক: ভোরবেলায় হিম হিম ভাব জানান দিচ্ছে প্রকৃতিতে কড়া নাড়ছে শীত। দিনে গরম থাকলেও শেষ রাতের দিকে গায়ে কাঁথা টেনে নিতে হয়। এরই মধ্যে ত্বক হয়ে উঠছে শুষ্ক, দেখা দিচ্ছে নানা স্বাস্থ্য জটিলতা।

শীত মোকাবিলার জন্য একটু আগে থেকেই প্রস্তুতি নিয়ে রাখা ভালো। গরম জামা কাপড় থেকে শুরু করে ত্বকের পরিচর্যার উপাদান সবকিছুই আগেভাগে গুছিয়ে রাখলে সময়টা ভালো কাটে। আসুন জেনে নিই শীতের আগে কী কী প্রস্তুতি নিয়ে রাখবেন সে সম্পর্কে-

তৈরি রাখুন শীতের পোশাক-

শীতের প্রস্তুতির কথা বললে প্রথমেই আসে শীতের পোশাক পরিষ্কারের কথা। কারণ সারা বছর এগুলো তুলে রাখার কারণে নানা ধরণের জীবাণু জন্ম নেয় এবং ভ্যাপসা গন্ধ হয়ে থাকে। তাই শীত শুরুর আগেই তুলে রাখা গরম পোশাকগুলো ধুয়ে ফেলুন। আয়রন বা সেলাইয়ের প্রয়োজন হলে তাও করে রাখুন এখনই। প্রয়োজনীয় শীতের পোশাক যেমন সোয়েটার, কার্ডিগান, জ্যাকেট, স্যুট, প্যান্ট, মাফলার, মোজা কিংবা কানটুপি- যা প্রয়োজন তা কিনে ফেলুন সময় করে। তাহলে শীত এলে আর কষ্ট পেতে হবে না।

কিনে রাখুন শীতের প্রসাধনী-

শীত আসার আগে থেকেই এর প্রভাব আমাদের ত্বকে পড়তে শুরু করে। ত্বক হয়ে পড়ে রুক্ষ। তাছাড়া পা ও ঠোঁট ফেটে যায়। তাই ত্বকের বাড়তি যত্নে আগে থেকেই প্রসাধন সামগ্রী কিনে রাখা দরকার। ময়েশ্চারাইজার, ক্রিম, পেট্রোলিয়াম জেলি, অলিভ অয়েল, বডি লোশন, লিপজেল, গ্লিসারিন, গোলাপজল ইত্যাদি হাতের কাছে রাখুন।

ত্বকভেদে একেক জনের জন্য একেক ধরনের প্রসাধনী উপযুক্ত হয়। আপনার ত্বকের সঙ্গে মানানসই প্রসাধনীই কিনতে চেষ্টা করুন। সস্তা পণ্য না কিনে ব্র্যান্ডের ও ভালো মানের পণ্য কিনুন, এতে ত্বকের ক্ষতি হওয়া আশঙ্কা থাকবে না।

পরিষ্কার রাখুন ঘরবাড়ি-

শীতের শুষ্কতায় ধুলোবালির পরিমাণ বেড়ে যায়। এই ধুলোবালির মাধ্যমে জীবাণু ছড়িয়ে অসুখ দেখা দেয়। তাই বাড়িঘর পরিষ্কার রাখা জরুরী। শীত আসার আগেই ঘরকে শীতের উপযুক্ত করে তুলুন। পাতলা পর্দা সরিয়ে জানালায় লাগান ভারী পর্দা। এতে ঘরে ধুলোবালি কম হবে। ঘরে কার্পেট থাকলে তা ভ্যাকুয়াম ক্লিনারের সাহায্যে পরিষ্কার করে ফেলুন।

রোগ থেকে দূরে থাকুন-

শীত এলেই বাড়ে ঠাণ্ডাজনিত রোগ। এই সময় জ্বর, নাক দিয়ে পানি পড়া, সর্দি-কাশি দেখা দেয়। এসব রোগ থেকে বাঁচার জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে আগে থেকেই। শীতের মৌসুমে প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় রাখতে পারেন মসলা চা, কুসুম গরম পানি, আদা, লেবু, মধু, বিভিন্ন সবজির স্যুপ ও তরল খাবার। এই সময় গোসলের পানি হালকা গরম থাকাই ভালো।

শীত আসার আগেই লেপ, কাঁথা, কম্বল, বিছানার চাদর, বালিশ বের করে রোদে দিয়ে নিন। প্রয়োজন হলে আগে থেকেই কিনে রাখুন রুম হিটার, ওয়াটার হিটার, ইলেকট্রিক কেটলিও। শীতকে উপভোগ করুন, সুস্থ থাকুন।