১৪ দিন পর স্বাভাবিক চট্টগ্রাম

টানা ১৪ দিন পর শিথিল করা হয়েছে কঠোর লকডাউন (বিধিনিষেধ)। ফলে অনেকটাই স্বাভাবিক হয়েছে বন্দরনগরী চট্টগ্রাম। সড়কে বেড়েছে যান চলাচল। পাশাপাশি দোকানপাট-শপিংমল খুলেছে।

বৃহস্পতিবার (১৫ জুলাই) নগরের চকবাজার, মুরাদপুর, বহদ্দারহাট, টাইগারপাস, নিউমার্কেট ও রিয়াজুদ্দিন বাজার এলাকা ঘুরে এ চিত্র দেখা যায়।

লকডাউন চলাকালীন বিভিন্ন কারখানার নিজস্ব পরিবহনের পাশাপাশি বিচ্ছিন্ন গণপরিবহন ও ব্যক্তিগত গাড়ি চলতে দেখা গেলেও সড়কে তেমন যানজট ছিল না। কিন্তু শিথিলের প্রথমদিনে চট্টগ্রামের বিভিন্ন মোড়ে যানজট দেখা গেছে। বিভিন্ন স্টপেজে গলা ছেড়ে যাত্রী ডাকতেও দেখা গেছে পরিবহন শ্রমিকদের।

৪ নম্বর রোডের বাসচালক মো. নবী  বলেন, ‘অনেকদিন পর আজকে গাড়ি বের করলাম। সবাই গাড়ি বের করাতে মোড়ে মোড়ে যানজট হচ্ছে।’

জানতে চাইলে চট্টগ্রাম নগর ট্রাফিক পুলিশ দক্ষিণ জোনের পরিদর্শক (প্রশাসন) মহিউদ্দিন খান  বলেন, ‘লকডাউন শিথিলের ঘোষণায় লোকজন যেমন বেশি বের হয়েছেন, তেমনি গণপরিবহন ও ব্যক্তিগত গাড়িও বেশি বের হয়েছে। যানজট সামলাতে ট্রাফিক পুলিশের হিমশিম খেতে হচ্ছে।’

এদিকে লকডাউনের সময় বিচ্ছিন্নভাবে খুললেও বৃহস্পতিবার বিভিন্ন বড় বড় শপিংমলসহ সব ধরনের দোকানপাট খুলতে দেখা গেছে। তবে সড়কে সাধারণ মানুষের চাপ দেখা গেলেও নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দোকান ছাড়া শপিংমলগুলোতে তেমন চাপ ছিল না। দোকানদারদের অনেকটা হাত গুটিয়ে বসে থাকতে দেখা গেছে।

রিয়াজুদ্দিন বাজারের শাড়ির দোকানদার হেলাল উদ্দিন বলেন, ‘সরকার লকডাউন তুলে নিছে শুনে দোকান চালু করলাম। কিন্তু কাস্টমার তো নেই। এভাবে কিছুদিন লকডাউন কিছুদিন খোলা থাকলে আমাদের মনে হয় ব্যবসা ছেড়ে চলে যেতে হবে।’