সাগরে লঘুচাপের কারণে বাড়তে পারে বৃষ্টিপাত

দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বয়ে যাচ্ছে দাবদাহ। আগামী দুদিন আবহাওয়ার উল্লেখযোগ্য কোনো পরিবর্তন নেই। তবে পাঁচ দিনের মধ্যে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়তে পারে।

সোমবার (১২ জুলাই) রাতে আবহাওয়াবিদ মো. আফতাব উদ্দিন এসব তথ্য জানান। তিনি বলেন, আগামী দুদিনের মধ্যে আবহাওয়ার তেমন কোনো পরিবর্তন না হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে দাবদাহ শুরু হয়েছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে। কোথাও কোথাও ৩৭ ডিগ্রি তাপমাত্রা বয়ে যাচ্ছে। আগামী পাঁচ দিনের মধ্যে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়তে পারে।

পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ায় বলা হয়েছে, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কয়েকটি স্থানে এবং রংপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল ও ঢাকা বিভাগের দু-এক স্থানে অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে সারাদেশের কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে মাঝারি ধরনের ভারী বর্ষণ হতে পারে।

পাবনা, বগুড়া, নওগাঁ, সিরাজগঞ্জ, ময়মনসিংহ ও সিলেট অঞ্চলসহ রংপুর বিভাগের ওপর দিয়ে মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। তা অব্যাহত থাকতে পারে। আগামী ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা সামান্য বাড়তে পারে। এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় দিনাজপুর, বগুড়া, সৈয়দপুরে ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত হয়েছে সীতাকুন্ডতে ৫৩ মিলিমিটার।

সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়েছে, উত্তর অন্ধ্র প্রদেশ, দক্ষিণ উড়িষ্যা উপকূলের অদূরবর্তী পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন উত্তর পশ্চিম বঙ্গোপসাগর এলাকায় একটি লঘুচাপ অবস্থান করছে। এটি উত্তর পশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে।

মৌসুমি বায়ুর অক্ষের বর্ধিতাংশ রাজস্থান, মধ্য প্রদেশ, উড়িষ্যা, লঘুচাপের কেন্দ্রস্থল, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চল হয়ে উত্তর পূর্ব আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর কম সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে দুর্বল থেকে মাঝারি অবস্থায় বিরাজ করছে।