হেফাজত তান্ডবে সাজোয়া যানে অগ্নিসংযোগে  অংশ নেয়া হেফাজত কর্মী প্রীতম গাজীপুরে গ্রেপ্তার

আব্দুল্লাহ আল নাঈম ঃ  ব্রাক্ষণবাড়িয়া প্রতিনিধিঃব্রাক্ষণবাড়িয়ায় হেফাজতে ইসলামের তাণ্ডবে পুলিশের সাজোয়া যানে পেট্রোল ঢেলে অগ্নিসংযোগ ও বিশ্বরোড এলাকায় নাশকতায় অংশ নেয়া এক হেফাজত কর্মী
জাকারিয়া আহমেদ প্রীতম ( ২৭)কে গাজীপুর থেকে গ্রেপ্তার করেছে এন্টি টেররিজম ইউনিটের সদস্যরা।  প্রীতম, জেলার সরাইল উপজেলার নোয়াগা এলাকার নাসির উদ্দিনের ছেলে।

শনিবার বিকেলে এন্টি টেররিজম ইউনিটের একটি দল গাজীপুর সদর থানাধীন শিমুলতলী কলেজ গেইট ভূইয়া পাড়া জামে মসজিদ এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে।

এন্টি টেররিজম ইউনিটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপারেশন উয়িং) মো. সাখাওয়াত হোসেন জানান, গ্রেপ্তারকৃত জাকারিয়া গত ২৮ মার্চ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতের তাণ্ডবে পুলিশের এপিসির উপরে উঠে গ্যালনভর্তি পেট্রোল দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছিল। সেই অগ্নিসংযোগ তথা নাশকতার সময় প্রীতম গুলিবিদ্ধ হয়। পরে ব্রাম্মণবাড়িয়ায় এক আত্মীয়ের বাসায় আত্মগোপন করে। সেখান থেকে পালিয়ে ঢাকার উত্তরার একটি হাসপাতালে চিকিৎসা নেয় এবং গাজীপুরে গিয়ে আবার আত্মগোপন করে। পরে চলে যায়। পুলিশী অভিযানের মুখে আসামী জাকারিয়া পরে পালিয়ে গাজীপুরে একটি বাসা ভাড়া নিয়ে মা ও ছোটভাইসহ আত্মগোপন করে। এন্টি টেররিজম ইউনিট হেফাজতের নাশকতার ফুটেজ থেকে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে তাকে সনাক্ত করে এবং শনিবার বিকেল চারটার দিকে তাকে গাজীপুর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। প্রীতম হেফাজতের তান্ডবের ঘটনায় সরাইল থানায় ৩১মার্চ দায়েরকৃত মামলার একজন আসামি। তাকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশে হস্তান্তর করা হয়েছে।