৫০ লাখ টিকা আসবে আগস্টে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

লেখক: তানিম টিভি
প্রকাশ: ১১ মাস আগে

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানিয়েছেন, আগস্ট মাসে দেশে আরও ৫০ লাখ করোনা ভাইরাসের টিকা আসবে।

রবিবার (২ আগস্ট) দুপুরে বিশ্ব মাতৃদুগ্ধ সপ্তাহ উপলক্ষে অনলাইনে আয়োজিত এক ওয়েবমিনারে তিনি এ কথা জানান।

বিভিন্ন দেশ ও সংস্থার টিকা পাচ্ছে জানিয়ে জাহিদ মালেক বলেন, আমরা এরই মধ্যে কোভ্যাক্স থেকে অ্যাস্ট্রোজেনেকার টিকা পেয়েছি। মর্ডানার টিকা পেয়েছি, ফাইজারের টিকা পেয়েছি। ভারতের কাছে অ্যাস্ট্রোজেনেকার ২ কোটিরও বেশি টিকা পাওনা রয়েছে। চীনের সঙ্গে চুক্তি করে সিনোফার্মের অনেক টিকা পেয়েছি। এ মাসে ৫০ লাখ টিকা আসা নিশ্চিত হয়েছে। হয়তো এর বেশিও আসতে পারে। ফাইজারের টিকাও এ মাসে আসার কথা রয়েছে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আগামী বছর জনসন অ্যান্ড জনসনের ৭ কোটি টিকা পাওয়ার কথা রয়েছে। রাশিয়ার সঙ্গে টিকা নেওয়ার চুক্তি করা আছে সেখানেও আমাদের ১ কোটি টিকার অর্ডার দেওয়া আছে। এছাড়া বিভিন্ন দেশে টিকা পাওয়ার জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আশা করছি, যেভাবে টিকা পাচ্ছি, তাতে আমরা ভালো একটা অবস্থানে থাকবো।

আগামী ৭ আগস্ট থেকে দেশের ইউনিয়ন পর্যায়ে বয়স্কদের টিকা দেওয়ার ব্যবস্থা করেছি। প্রায় ১৪ হাজার টিকা কেন্দ্র থেকে টিকা দেওয়া হবে। আশা রাখছি, প্রথম এবং দ্বিতীয় ডোজ মিলে প্রায় ১ কোটি টিকা দিতে পারবো। আগামীতেও টিকা পাওয়া সাপেক্ষে আমাদের এ কার্যক্রম চলবে।

গর্ভবতী মায়েদের টিকা দেওয়ার বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে মন্ত্রী বলেন, গর্ভবতী মায়েদের আমরা টিকা দিতে চাই। এ বিষয়ে আমাদের বিশেষজ্ঞ যে টিম রয়েছে, তাদের পরামর্শ নেওয়া হচ্ছে। এ বিষয়ে বিশ্বসাস্থ্য সংস্থার গাইড লাইন আছে, সে অনুযায়ী গর্ভবতী মায়েদের টিকা দেওয়ার যথাযথ ব্যবস্থা নেবো।

ওয়েবমিনারের অন্যান্য বক্তারা মায়ের দুধের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করে তাদের মতামত উপস্থাপন করেন।

ওয়েবমিনারে সভাপতিত্ব করেন স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সিনিয়র সচিব লোকমান হোসেন মিয়া। বিশেষ অতিথি হিসেবে আলোচনা করেন- স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, স্বাস্থ্যশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আলী নূর ও অতিরিক্ত সচিব সৈয়দ মুজিবুল হক।