লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে এতিমের সম্পত্তি দখলের চেষ্টা 

লেখক: তানিম টিভি
প্রকাশ: ২ মাস আগে

মাহমুদুন্নবী সুমন, লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে মেহেদী হাসান নামের এক এতিমের পৈতৃক ভিটা-জায়গা জমি থেকে  প্রভাবশালীদের প্রশ্রয়ে আপন জেঠাতো ভাই কর্তৃক উচ্ছেদের ষড়যন্ত্র  চলছে।
ঘটনাটি রায়পুর উপজেলার ৫ নং চরপাতা ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ডের ফজর আলী পাটোয়ারী বাড়িতে ঘটে।
এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ২৬ নং চরপাতা মৌজার ২৩৭২ নং খতিয়ানের ২০৪৯ দাগের( বাটা হাল ২৮৪৭.২৮৪৯)মেহেদী হাসানের পিতা মৃত শহিদুর রহমান পৈতৃক সূত্রে ১২ শতাংশ জমির মালিক হন এবং তিনি তা নিজ অর্থায়ানে ভরাট করেন।তার মৃত্যুর পরে তার ছেলে মেহেদি সেই জমিতে ঘর নির্মাণ করেন। এবং নিজ জমি থেকে মাটি কাটার সময় তার আপন জেঠাতো ভাই আব্দুর রউফ(৪৫),বোরহান উদ্দিন (৪০) উভয় পিতা মনির আহম্মদ কর্তৃক প্রভাবশালীদের ছত্রছায়ায় বাঁধার সম্মুখীন হন বলে জানা যায়। যার একটি ভিডিও ফুটেজ এই প্রতিবেদকের হাতে রয়েছে।
এই ব্যাপারে মেহেদী হাসান বলেনআমি যখন আমার পৈতৃক সম্পত্তিতে বাড়ি নির্মাণ করতে আসি তখন (চেয়ারম্যান কার্যালয়) অফিসে যেয়ে আমার নামে মামলা করে।
এবং আমার ঘর করাতে তারা বাধা প্রদান করে তখন আমি চেয়ারম্যান অফিসে যেয়ে চেয়ারম্যানকে যখন  খুলে বলি তখন স্থানীয় জনতা এবং লিলি কমিশনারের সাহায্যে পুনরায় ঘর করার অনুমতি পাই। এখন ঘর করার পরে যখন আমি বসতবাড়ির ভিটায় মাটি দেওয়ার জন্য আমার নিজস্ব ভরাটকৃত জায়গা হইতে মাটি উত্তোলন করতে চাই তখন আমার চাচাতো ভাই বোরহান উদ্দিন এবং আব্দুর রউফ এবং এলাকার কিছু প্রভাবশালী লোক তাতে বাধা প্রদান করে ।
এই ব্যাপারে বোরহান উদ্দিন বলেন বাপদাদার সম্পত্তি তারা যেখানে খুশি সেখানে নিতে পারে না
এই ব্যাপারে ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সুলতান মামুনুর রশীদ বলেন মেহেদী হাসান ছেলেটা এতিম বাবা মা বেঁচে নেই। চাচাতো জেঠাতো ভাইদের মধ্যে জমি নিয়ে বিরোধ চলছে অনেক আগ থেকেই গত ফেব্রুয়ারী মাসে আমার কাছে একটি অভিযোগ দায়ের করেন বোরহান উদ্দিন তখন স্হানীয় লিলি কমিশনার সহ  আলোচনা করে ঘর নির্মাণ করতে বলা হয়  এবং এখন  সংঘর্ষ হতে পারে শুনে আমি চৌকিদার পাঠিয়ে কাজ বন্ধ করতে বলি,কাগজ পত্র দেখে সমাধান করে দেবো বলে আশ্বাস দিয়েছি।
রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শিপন বড়ুয়া বলেন এই ব্যাপারে লিখিত কোনো অভিযোগ পাইনি অভিযোগ পেলে আইন অনুযায়ী ব্যাবস্হা গ্রহণ করা হবে।