রাজধানীতে গলায় ফাঁস দিয়ে সাবেক ছাত্রলীগ নেতার আত্মহত্যা

লেখক: তানিম টিভি
প্রকাশ: ১ বছর আগে

রাজধানীর শুক্রাবাদ এলাকার একটি বাসায় গলায় ফাঁস দিয়ে কলাবাগান থানা ছাত্রলীগ কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. রুবেল (৩৫) আত্মহত্যা করেছেন।

মঙ্গলবার (২২ জুন) সকালে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক বেলা ১২টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বরিশালের হিজলা থানার মৃত আবদুল মালেকের ছেলে রুবেল। তিনি শেরেবাংলা নগরের শুক্রাবাদ ৬২/১ নম্বর বাসায় পরিবার নিয়ে থাকতেন।

রুবেলের ছোট ভাই ওসমান গনি জানান, ‘আমার ভাই ১৭ নম্বর ওয়ার্ড কলাবাগানের সাবেক ছাত্রলীগের সেক্রেটারি ছিলেন। সিটি করপোরেশনের ময়লার টেন্ডার পেয়ে সেই কাজ করতেন তিনি। টেন্ডারটি জোরপূর্বক ১৭ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ও সেক্রেটারি শিশির দুয়ারী নিয়ে নেন এবং আমার ভাইকে টেন্ডার ছেড়ে দিতে বলেন। এ নিয়ে তাকে বিভিন্ন সময় হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছিলেন তারা।’

তিনি আরও জানান, ‘আমার ভাই প্রায় ১০ মাস ধরে ময়লার টেন্ডারের কাজ করে আসছিলেন। আর কয়েক মাস করার পর টেন্ডার ছেড়ে দেবেন বলে শিশিরদের জানিয়েছিলেন তিনি। আমার ভাই ঋণগ্রস্ত ছিলেন। এসব নিয়ে মানসিকভাবে আরও ভেঙে পড়েন তিনি। সব সময় বলতেন, এখন আমি কী করব, কীভাবে টাকা উপার্জন করবো, ঋণ শোধ দেব কীভাবে? এ নিয়ে দুশ্চিন্তা থেকে নিজ রুমে সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গলায় গামছা পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছেন তিনি।’

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আব্দুল্লাহ খান জানান, শুক্রাবাদ থেকে এক ব্যক্তিকে আনার পর চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢামেক হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি সংশ্লিষ্ট থানায় অবগত করা হয়েছে।