টেকনাফে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বিক্ষোভের চেষ্টা

লেখক: তানিম টিভি
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

টেকনাফ (কক্সবাজার)প্রতিনিধি :টেকনাফের নয়াপাড়া নিবন্ধিত রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ফুড কার্ড (রেশন কার্ড) কে কেন্দ্র করে বিক্ষোভের চেষ্টা করছে। গত জুন মাস থেকে ২০১৭ সালে মিয়ানমার থেকে আগত রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ডের মতো ১৯৯২ সালে আগত রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ড একই করাই এ বিক্ষোভ প্রদর্শনের চেষ্টা চালায়। শুধু তাই নই, গত জুলাই মাসে ওই নিবন্ধিত রোহিঙ্গারা রেশন গ্রহন করছেনা।
সুত্রে জানা যায়, টেকনাফের নয়াপাড়া নিবন্ধিত রোহিঙ্গা ক্যাম্পে (১৯৯২ সালে আগত রোহিঙ্গা) পুরাতন ও নতুন (২০১৭ সালে আগত) রোহিঙ্গারা বসবাস করে আসছে। এতোদিন পুরাতন রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ড নতুন রোহিঙ্গাদের ফুডকার্ডের চেয়ে ভিন্নতা ছিল।  সকল রোহিঙ্গাদের মাঝে সমপরিমাণ খাবার বিতরনের জন্য পুরাতন রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ড ফেরত নিয়ে গত জুন মাসে নতুন ফুড কার্ড ইস্যু করা হয়।
নতুন ফুড কার্ড অন্যান্য ক্যাম্পের সমসাময়িক (২০১৭ সালে)আগত নতুন রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ডের অনুরূপ  হওয়ায় নয়াপাড়া রেজিস্ট্রাড”  ক্যাম্পের পুরাতন রোহিঙ্গারা  নতুন ফুড কার্ড গ্রহণ না করে জুলাই মাসের রেশন উত্তোলন করেনি। নয়াপাড়া রেজিস্ট্রার্ড ক্যাম্পের  পুরাতন রোহিঙ্গাদের দাবি হচ্ছে নতুন  রোহিঙ্গাদের ফুড কার্ড এবং তাদের ফুড কার্ড একই রকম হওয়াতে রেজিস্টার্ড ক্যাম্পের পুরাতন  ও নবাগত রোহিঙ্গাদের সমান মর্যাদা দেয়া হচ্ছে। তাই তারা কোন ভাবেই এটা মেনে নেবে না।
এদিকে খোঁজ নিয়ে জানা যায়, শরণার্থী ত্রান ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (RRRC) ও UNHCR কর্তৃপক্ষ ফুড কার্ড বিষয়ে ওই সিদ্ধান্ত গ্রহন করে এবং এই সিদ্ধান্তে এখনো অটল রয়েছে।
কক্সবাজার ১৬ এপিবিএন এর অধিনায়ক এসপি মোঃ তারিকুল ইসলাম তারিক উক্ত তথ্য নিশ্চিত করে জানান, ফুড কার্ড বিষয়টি নিয়ে বর্তমানে ক্যাম্পের পুরাতন রোহিঙ্গাদের মধ্যে অসন্তোষ বিরাজ করছে। গত কয়েকদিন তারা এ নিয়ে বিক্ষোভ করার চেষ্টা করলে তাদের এপিবিএন ক্যাম্পে ডেকে বোঝানো হয় এবং তারা তা মেনে নেয়। উক্ত বিষয়ে ক্যাম্প ইনচার্জ (CIC) এবং UNHCR  এর সাথে  আলোচনার মাধ্যমে সৃষ্ট সমস্যা সমাধানের জন্য সব প্রচেষ্টা অব্যাহত আছে । আজ রবিবার ভোর থেকেই পুরাতন রোহিঙ্গারা নয়াপাড়া ক্যাম্পে বিক্ষোভ প্রদর্শন করার চেষ্টা করে যাচ্ছে l তবে এপিবিএন সতর্ক রয়েছে এবং পাহারা জোরদার করা হয়েছে।