এবার ভারতে টিকা নিতে পারবেন বিদেশিরাও

লেখক: তানিম টিভি
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

এবার ভারতে বসবাসকারী বিদেশি নাগরিকদেরও টিকার আওতায় আনতে যাচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার। এক্ষেত্রে পরিচয়পত্র হিসেবে পাসপোর্ট ব্যবহার করে কোউইন অ্যাপে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। এরপর যেকোনো টিকাকেন্দ্রে গিয়েই করোনার টিকা নিতে পারবেন তারা।

সোমবার কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে এক বিবৃতি প্রকাশ করে বিদেশি নাগরিকদের টিকাকরণের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করা হয়। এতে বলা হয়েছে, ‘বহু বিদেশি নাগরিক ভারতে বসবাস করছেন, বিশেষ করে মেট্রোপলিটন শহরগুলোতে। জনঘনত্ব বেশি হওয়ায় এসব এলাকায় সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কা বেশি। সেজন্যই সবাইকে টিকাকরণের আওতায় আনা অত্যন্ত জরুরি।’

এক টুইট বার্তায় কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মাণ্ডব্য লিখেছেন, ‘আমরা একসঙ্গে লড়াই করি, একসঙ্গে যুদ্ধ জিতি।’। কেন্দ্র এখন থেকে ভারতে বসবাসকারী বিদেশিদের কোউইনে রেজিস্টার করে টিকা নেওয়ার অনুমতি দিচ্ছে। এটা সংক্রমণ ঠেকানোর বিষয়টি নিশ্চিত করবে।

পরে একটি বিবৃতি প্রকাশ করে এই বিষয়ে বিস্তারিত ভাবে জানায় কেন্দ্র। বলা হয়, কোভিড মোকাবিলা আরও দৃঢ় করতে ঐতিহাসিক এক সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। এবার থেকে নথি হিসেবে পাসপোর্ট দেখিয়ে ভারতে বসবাসকারী বিদেশিরাও টিকা নিতে পারবেন। কোউইনে রেজিস্টার করার পরই টিকা পাবেন তারা।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, যতক্ষণ না সব মানুষ সুরক্ষিত হচ্ছেন, ততক্ষণ কোনো মানুষই সুরক্ষিত নয়। সেই লক্ষ্যে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে। এতে বিদেশি নাগরিকদেরও কোভিড থেকে সুরক্ষিত রাখা যাবে, আবার টিকা না নেয়া মানুষের মধ্যে সংক্রমণ ছড়ানোতেও রাশ টানা যাবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র।

এ বছর জানুয়ারি থেকে কোভিডের বিরুদ্ধে টিকাকরণ শুরু করেছে ভারত। এখন পর্যন্ত ৫১ কোটির বেশি মানুষকে টিকা দেয়া সম্ভব হয়েছে। ১৮ বছরের বেশি বয়সী সবাইকে টিকার আওতায় আনাই এখন কেন্দ্রীয় সরকারের লক্ষ্য।